Abhijit Banerjee In Mohun Bagan
featured post শহর ও শহরতলি সূচনা

“বাড়ির একমাত্র ইস্টবেঙ্গল সমর্থক আমি” আজ সম্মানিত মোহনবাগানের আজীবন সদস্যপদে

বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমের দ্বারা বিষয়টি আগেই সকলের কাছে পরিষ্কার হয়েছিল। নোবেলজয়ী অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় পা রেখেছেন তিলোত্তমায়। একাধিক জায়গা থেকে তাকে সংবর্ধনা জানানোর জন্য চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি। এই সংক্ষিপ্ত সফরে বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন তিনি। তার আগেই নোবেল জয়ী অর্থনীতিবিদের বাড়িতে পৌঁছে গেলেন সবুজ মেরুন কর্তারা। আগেই শতাব্দী প্রাচীন ক্লাবের পক্ষ থেকে ইমেইল করে অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়-কে সম্মান জানানোর ইচ্ছা প্রকাশ করা হয়েছিল। বিষয়টি নিয়ে কিছুটা চিন্তিত ছিলেন নোবেল জয়ী অর্থনীতিবিদ। যে কথা স্বীকার করে পরবর্তীতে তিনি বলেন, “একজন ইস্টবেঙ্গল সমর্থক হিসেবে আমি বিষয়টা নিয়ে ভাবছিলাম, তারপর মনে হলো দুটি ক্লাব তো বাঙালির সম্পদ, কতো ঐতিহ্য, ইতিহাস, সব ভাবনা সরিয়ে ঠিক করলাম এই সম্মান আমি নেব”। আজ বালিগঞ্জে নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদের বাড়ি গিয়ে অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাতে মোহনবাগানের আজীবন সদস্যপদের সম্মান তুলে দেন ক্লাব কর্তারা। সাথে ছিল ১৯১১ সালের ঐতিহাসিক শিল্ড জয়ী মোহনবাগান দলের ছবি ও সবুজ মেরুন উত্তরীয়। অভিজিৎ বাবু বলছিলেন,

“আমার ছোটবেলা কাটানো এই মহানির্বান রোডে ইস্টবেঙ্গল সমর্থক হাতে গোনা কয়েকজন, যার মধ্যে একজন আমি, শুধু তাই নয় আমার বাড়ির প্রত্যেক সদস্য মোহনবাগান প্রেমী, তবে ছোট বেলা থেকে দুই ক্লাবের কাহিনী শুনতে শুনতে আমি যে কখন লাল হলুদ প্রেমী হয়েছিলাম এখন আর মনে করা সম্ভব নয়”।

লাইক করুণ আমাদের ফেসবুক পেজ Nabadin.com 

ফলো করুণ আমাদের টুইটারে Nabadin24News

সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল Nabadin News

সাম্প্রতিক শিরোনাম:

অনুসরণঃ

#Kolkata #East Bengal #Mohun Bagan

পাঠকের প্রতিক্রিয়া একান্ত কাম্য । নিচে কমেন্ট বক্সে জানান আপনার মতামত