Mother Language Day History
featured post অজানা সূচনা

কেমনে এলো ২১ শে ফেব্রূয়ারি?

Focal Point:

  • 21st February International Mother Language Day History

একুশে ফেব্রূয়ারি আমি কি ভুলিতে পারি? সত্যিই ভোলা সম্ভব নয় সেই দিনটাকে। ১৯৪৭ সালে দেশ ভাগের মধ্যে দিয়ে লুকিয়ে ছিল গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ গঠনের বীজ। ভারত বর্ষ বিভাজিত হয়ে ছিল ধর্মের ভিত্তিতে, যদিও তার দু টুকরো না হয়ে হয়েছিল তিন টুকরো- ভারতবর্ষ, পূর্ব পাকিস্তান ও পশ্চিম পাকিস্তান। মুসলিম লীগ চেয়েছিল পূর্ব পাকিস্তানকে সম্পূর্ণরূপে একটা ইসলাম রাষ্ট্রে পরিণত করার জন্য। পরবর্তীকালে যখন তারা রাজনৈতিক দিক থেকেই পূর্ব পাকিস্তানের জনগণের ওপর উর্দু ভাষাকে সরকারি ভাষা হিসেবে অগ্রগণ্য দেয়ার কথা ভেবেছিল এবং বাংলা ভাষাকে একরকম অবহেলিত করতে চেয়েছিল তখন অপামর পূর্ব পাকিস্তান তথা বাঙালি সমাজ তারা সমস্ত কিছু ভুলে গিয়ে ধর্ম বর্ণ ভুলে গিয়ে মাতৃভাষাকে মাতৃদুগ্ধ সম ভেবে আন্দোলনে নেমেছিল। আন্দোলন ছড়িয়ে ছিল সর্বত্র। তার মধ্যে অগ্রগণ্য ভূমিকা গ্রহণ করেছিল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের তরুণ ছাত্র ছাত্রীরা। সালটা ১৯৫২ সেদিন ঢাকার রাজপথ তরুণের রক্তে রক্তাক্ত হয়েছিল। তারপরে আরও তীব্রতর হয়ে উঠেছিল আন্দোলন। বাঙালি তখন বুঝে ছিল তারাও আন্দোলন করতে জানে। পরবর্তীকালে তারা আন্দোলনে সফল হয়েছিল। এরই মধ্যেই ভাষাকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশ গঠনের সুপ্ত প্রার্থনা প্রকাশ পেয়েছিল, তারপর থেকেই উনিশশো একাত্তর সালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে স্বাধীন গণতান্ত্রিক বাংলাদেশ গঠিত হয়। এরপর থেকেই একুশে ফেব্রুয়ারি দিনটি মুক্তি ভাষা দিবস হিসেবে পালিত হয়ে এসেছিল। পরবর্তীকালে ১৯৯৯ সালে ১৭ই নভেম্বর ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে ইউনেস্কোর ৩০ তম অধিবেশনে একুশে ফেব্রুয়ারিকে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে ঘোষণার প্রস্তাব পাশ করা হয়। তারই এক বছর পরে ২০০০ সালের একুশে ফেব্রুয়ারি থেকে ১৮৮ টি দেশে এই দিনটি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে পালন শুরু হয়।

লাইক করুণ আমাদের ফেসবুক পেজ Nabadin.com 

ফলো করুণ আমাদের টুইটারে Nabadin24News

সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল Nabadin News

সাম্প্রতিক শিরোনাম:

অনুসরণঃ

#National #International

পাঠকের প্রতিক্রিয়া একান্ত কাম্য । নিচে কমেন্ট বক্সে জানান আপনার মতামত